শিশু কি টিভি-আসক্ত?

টিভি দেখতে না দিলে অনেক শিশু চেঁচামেচি জুড়ে দেয়, আর চালু করলেই শান্ত। অতিরিক্ত টিভি দেখা একপর্যায়ে আসক্তিতে পরিণত হতে পারে যা শিশুর শারীরিক ও মানসিক স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর—এটা এখন গবেষণালব্ধ ও স্বীকৃত তথ্য।

অস্ট্রেলিয়ার ইউনিভার্সিটি অব সিডনি পরিচালিত এক গবেষণায় দেখা যায়, শিশুর বেশি টিভি দেখার অভ্যাস বয়সকালে হূদেরাগ, উচ্চ রক্তচাপ ও ডায়াবেটিসের ঝুঁকি বাড়ায়। অতিরিক্ত টেলিভিশন দেখা কম শারীরিক পরিশ্রম এবং অস্বাস্থ্যকর ও অনিয়ন্ত্রিত খাদ্যাভ্যাস গড়ে তোলে, যার ফলে ওজন বাড়ে। ব্রিটিশ গবেষকদের গবেষণায় দেখা যায়, যারা ঘণ্টার পর ঘণ্টা টিভি দেখে, তাদের শ্বাসকষ্ট বা অ্যাজমার ঝুঁকি বেশি। খুব কাছ থেকে বা টানা টিভি দেখার ফলে চোখের সমস্যা, মাথাব্যথা প্রভৃতি হতে পারে। মারামারি বা ধ্বংসাত্মক অনুষ্ঠান বেশি দেখার ফলে শিশুর উগ্র স্বভাব ও আচরণগত সমস্যা হওয়ার আশঙ্কা থাকে। শিশুকে সমবয়সীদের সঙ্গে মেশার ও খেলার সুযোগ করে দিন। সৃজনশীল কাজ যেমন, নাচ-গান, অভিনয়, আবৃত্তি, ছবি আঁকা প্রভৃতির সুযোগ করে দিতে পারেন। গল্পের বই পড়ে শোনান ও বইয়ের প্রতি আগ্রহী করে তুলুন।

ডা. মুনতাসীর মারুফ
জাতীয় মানসিক স্বাস্থ্য ইনস্টিটিউট।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *