রেকটাল প্রোল্যাপ্‌স

চিকিৎসা বিজ্ঞানের আদি থেকেই এ রোগটি চিকিৎসকদের কাছে পরিচিত। এ রোগে রোগীর পায়ুপথ মলদ্বারের বাইরে বেরিয়ে আসে। বিশেষত পায়খানা করার সময় বাইরে ঝুলে পড়ে। এরপর রোগী হাত দিয়ে এটিকে ভিতরে ঢুকিয়ে দেন। দেশের বিভিন্ন এলাকার রোগীরা এটিকে ভিন্ন ভিন্ন নামে যেমন সিলেটে বসে আলিশ, হবিগঞ্জ এলাকায় বলে কম্বল বের হয়েছে এবং বরিশালের লোকেরা বলে আইলতা বের হয়েছে।

কেন হয়?

এ রোগটি শিশু ও বৃদ্ধ বয়সে বেশি হয়। মহিলাদের হওয়ার সম্ভাবনা বেশি। বাচ্চাদের সাধারণত তীব্র ডায়রিয়ার পর এ রোগটি দেখা দেয়। তল পেটের বা পেলাভিসের কিছু গঠনগত সমস্যা এ রোগের জন্য দায়ী বলে মনে করা হয়। স্বাভাবিক অবস্থায় পায়ুপথ বা রেকটাম অন্যান্য মাংসপেশীর সাথে আকড়ে থাকে। কিন্তু এ রোগীদের ক্ষেত্রে এটির অভাব দেখা যায়। এ রোগে বিভিন্ন কারণের মধ্যে রয়েছে মলত্যাগের অভ্যাসের অসংগতি যেমন- কোষ্ঠকাঠিন্য, মহিলাদের বন্ধাত্ব, রেকটামের সাথে সন্নিহিত অস্থির দৃঢ় সংযুক্তির অভাব ইত্যাদি। মানসিক রোগীদের মধ্যে এ রোগ বেশি দেখা যায়। জগদ্বিখ্যাত পায়ুপথ বিশেষজ্ঞ ডাঃ গলিঘার-এর মতে তার দেখা রোগীদের এক তৃতীয়াংশই মানসিক রোগী।

উপসর্গ

রোগীরা সাধারণত অভিযোগ করেন যে, তাদের মলদ্বার পায়খানা করার সময় অনেকখানি নীচে ঝুলে পড়ে এবং চাপ না দিলে ভেতরে যায় না। ওজন তুললে অথবা কাশি দিলেও কখনও কখনও বেরিয়ে আসে। সাধারণত রক্ত যায় না, তবে মিউকাস বা আম যায়। যখন পায়ুপথ বেশি ঝুলে পড়ে এবং ঢুকানো যায় না তখন রক্ত যেতে পারে। প্রায় অর্ধেক রোগী কোষ্ঠকাঠিন্যে ভোগেন।

অনেক ক্ষেত্রে এ ধরনের রোগীরা পায়খানা আটকে রাখতে ব্যর্থ হন। কখনও কখনও ঝুলে পড়া অংশটি চেষ্টা করেও ভেতরে ঢুকানো যায় না, অবস্থা আরও খারাপ হলে রক্ত চলাচল বন্ধ হয়ে পচন ধরতে পারে। মহিলাদের ক্ষেত্রে এর সাথে জরায়ুও বেরিয়ে আসতে পারে এবং মুত্রথলিও ঝুলে পড়তে পারে যার কারণে প্রসাবের অসুবিধা হতে পারে।

এ রোগের শুরুতে রোগীরা বলেন যে, তাদের মনে হয় পায়ুপথ ভরা ভরা লাগে এবং ভেতরে কোন চাকা বা মাংসের দলা রয়েছে বলে মনে হয়। অনেকক্ষণ বসে বা দাঁড়িয়ে থাকলে সমস্যা আরও বেশি মনে হয়। মলত্যাগ করতে বা বায়ু ত্যাগ করতে কিছুটা বাধা লাগে। পায়খানা করে পেট ক্লিয়ার হয়নি বলে মনে হয় এবং আঙ্গুল দিয়ে পায়খানা করতে হয়। কারো কারো মলদ্বারের চতুর্দিকে ব্যথা হয় যা নিতম্ব অথবা পায়ের দিকে বিস্তৃত হতে পারে।

চিকিৎসা

প্রোল্যপস দু’ধরনের হতে পারে। আংশিক যেক্ষেত্রে মিউকাস ঝিল্লী ঝুলে পড়ে এবং সম্পূর্ণ সে ক্ষেত্রে পায়ুপথের প্রাচীরের সমস্ত স্তরসহ ঝুলে পড়ে।

প্রল্যপস যে প্রকারেরই হোক এর চিকিৎসা অপারেশন। তবে কোন রোগী যদি চিকিৎসার জন্য অনুপযুক্ত বিবেচিত হন বা অপারেশন করতে রাজী না হন তাহলে কিছু রক্ষণশীল পদ্ধতি অবলম্বন করা যায়। যেমন- মলত্যাগের সময় মলদ্বার হাত দিয়ে চেপে উপরের দিকে রাখতে হয়, নিতম্ব দু’টিকে টেপ দিয়ে আটকে রাখা, মলদ্বারের মাংসপেশীর ব্যায়াম, রিং লাইগেশন পদ্ধতি ইত্যাদি।

অধ্যাপক ডা. একেএম ফজলুল হক
বৃহদন্ত্র ও পায়ুপথ সার্জারি বিশেষজ্ঞ
চেয়ারম্যান (অবঃ), কলোরেকটাল সার্জারি
বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়, ঢাকা।
জাপান-বাংলাদেশ ফ্রেন্ডশিপ হাসপাতাল লিঃ
৫৫, সাত মসজিদ রোড, ধানমন্ডি, ঢাকা
ফোন : ০১৭২৬৭০৩১১৬, ০১৭১৫০৮৭৬৬১।

সূত্র: দৈনিক ইত্তেফাক, অক্টোবর ২৬, ২০০৯

11 thoughts on “রেকটাল প্রোল্যাপ্‌স

  1. বাংলা হেলথ-কে ধন্যবাদ। ঘরে বসে চিকিৎসা জ্ঞান পাব বিষয়টা অ‍বিশ্বাস্য। রেকটাল প্রোল্যাপ্স বিষয়ে ছবিসহ ফিচার থাকলে বুঝতে আ‍রো সুবিধা হত। তারপর ো অ‍নেক ধন্যবাদ।

  2. amar age 34.amar moldare ar alpo aktu upora akta choto guti hoyacha kichudin thake abar guti misa jai.2 years jabot.akon gorom a guti ta boro hoyacha chulkai,bosta osubidha hoy but mol teg korta osubidha hoy na. ata ki pails roog.ata ki pails roog ar purbo lokkhon.

    1. হতে পারে, তবে আপনার যেহেতু মাঝে মাঝে হয়, আবার এমনিতেই কমে যায়, তাই পরীক্ষা করে দেখা উচিত। তাছাড়া যখন চুলকানি হচ্ছে তখন অবশ্যই একবার ডাক্তার দেখিয়ে নেবেন।

    1. আগে ডাক্তার দেখাবেন। ডাক্তার অবস্থা বুঝে টেস্টের ব্যবস্থা করতে পারেন।

  3. amar 2 bochar aghe moldare mol teg korar somoy rokto podto.But onack din valo chilo.kintu 1bochar dora maje maje mol teg ar somoy rokto pora but mije mije thik hoi jai.tar sathe moldera khub choto guti dakhe jato aber theka na.rokto poda ta khub kosto kor.

    1. আঁশ জাতীয় খাবার যেমন শাকসবজি বেশি বেশি খেয়ে এবং বেশি বেশি পানি পান করে দেখুন।

  4. Amr kintu temon kono betha ba Somossha na thakleo paikhana ektu sokto hoi & Kichu din age ami sena bahini te gelam vorty hoite to amk pails ache bole rejected kore dilo . ami kintu ta age kono ter paini ar ekhono kono lokkhon Nai setar kintu paikhana ektu sokto hoi …

    Ei bepare apni jody kono dhoroner amr sahajjo korle ami onnek khusi hotam.

      1. অল্প থাকলে ঠিকমতো খাওয়াদাওয়া (সঠিক খাবার) করলে ঠিক হয়ে যাওয়ার কথা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *